free hit counter
পেরেসই রিয়াল সভাপতি
খেলা

পেরেসই রিয়াল সভাপতি

আরও একবার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রিয়াল মাদ্রিদের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন ফ্লোরিন্তিনো পেরেজ। এই নিয়ে টানা তিনবার এবং সবমিলিয়ে চতুর্থবারের মতো রিয়ালের সভাপতি নির্বাচিত হলেন পেরেজ। নতুন দায়িত্ব গ্রহণের মধ্য দিয়ে ২০২৫ সাল পর্যন্ত রিয়ালের প্রেসিডেন্টের দ্বায়িত্বে থাকবেন পেরেজ।

২০০০ সালে প্রথমবারের মতো রিয়াল মাদ্রিদের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছিলেন পেরেজ। সেবার ৫৫ শতাংশ ভোট পেয়ে নির্বাচনে জয়লাভ করেন এই ব্যবসায়ী। আর দায়িত্ব নিয়েই ওই বছর বার্সেলোনা থেকে লুইস ফিগো, পরের বছর জুভেন্টাস থেকে জিনেদিন জিদানকে এরপর একে একে রোনালদো নাজারিও আর ডেভিড বেকহামকে দলে ভিড়িয়ে তৈরি করেন প্রথম গ্যালাক্টিকো স্কোয়াড।

এরপর পেরেজ ২০০৬-২০০৯ এই তিন বছর রিয়ালের প্রেসিডেন্ট ছিলেন না। তবে পরেরবার ২০০৯ সালের ১ জুন থেকে শুরু করে টানা বর্তমান সময় পর্যন্ত তিনিই রিয়াল মাদ্রিদের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। পেরেজের অধীনে রিয়াল মাদ্রিদ মোট পাঁচটি উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা জয় করেছে। এছাড়াও জিতেছে অন্যান্য সম্ভাব্য সকল শিরোপায়।

পেরেজের অধীনে রিয়াল মাদ্রিদ এখন পর্যন্ত মোট ৪৭টি শিরোপা জিতেছে। যার মধ্যে ২০১১-২০২০ এই দশকেই জিতেছে ৩৯টি। পেরেজের তৃতীয় মেয়াদে প্রেসিডেন্ট থাকাকালীনই স্টেডিয়ামকে নতুন করে গড়ে তোলার চুক্তি সম্পন্ন হয়। এবং সেই অনুযায়ী ৭৫০ মিলিয়ন ইউরোর ঋণ নেয় রিয়াল মাদ্রিদ কর্তৃপক্ষ। আর দ্রুত গতিতে এগিয়েও চলছে নতুন সান্তিয়াগো বার্নাব্যুর কাজ। আগামি ২০২২ সালে নাগাদ প্রস্তুত হয়ে যাবে এই স্টেডিয়াম। আর ধারণা করা হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে আধুনিক এবং সুন্দরতম ফুটবল স্টেডিয়ামই হবে রিয়াল মাদ্রিদের এস্তাদিও সান্তিয়াগো বার্নাব্যু।

Related posts

সাবেক স্ত্রীর জন্য ‘সম্মান’ চাইলেন ক্যাসিয়াস

News Desk

দুর্দান্ত বেনজেমা, ১০ মিনিটের তাণ্ডবে শীর্ষে রিয়াল

News Desk

ঘরের মাঠে লিভারপুলকে হারালো রিয়াল

News Desk