Image default
খেলা

পাকিস্তানি হলে টেস্ট খেলতে পারতেন না ওয়ার্নার

প্রায় সাত বছর আগে পাকিস্তানের হয়ে সবশেষ খেলেছেন ডানহাতি ব্যাটসম্যান শোয়েব মাকসুদ। এখনও তিনি পথ খুঁজে বেড়াচ্ছেন জাতীয় দলে ফেরার। সে লক্ষ্যে আপাতত ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি নিয়েই ভাবছেন তিনি, টেস্টের চিন্তা আপাতত রাখেননি মাথায়। এর পেছনে রয়েছে একটি কারণ।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে মাকসুদ জানিয়েছেন, পাকিস্তানে এমন একটা সময় ছিল, যখন দ্রুত রান তুলতে পারা ব্যাটসম্যানদের কখনও টেস্টের জন্য বিবেচনাই করা হতো না। তাই মারকুটে ব্যাটসম্যানদের শুধু ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টিই খেলতে হতো। মূলত এ কারণেই টেস্টের দিকে আপাতত মনোযোগ দিচ্ছেন না তিনি।

ক্রিকউইকে দেয়া সাক্ষাৎকারে মাকসুদ বলেছেন, ‘এই মুহূর্তে টেস্ট ক্রিকেট আমার ভাবনায় নেই। ২০১৩ সালে আমি যখন দলে এলাম, তখন ওয়ানডে ও টেস্টের স্বপ্নই দেখতাম। তখন নিজেকে টি-টোয়েন্টি ব্যাটসম্যান হিসেবে একদমই ভাবিনি।’

এসময় তিনি জানান, অদ্ভুত দল নির্বাচন প্রক্রিয়ার কারণে অস্ট্রেলিয়ার মারকুটে ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার যদি পাকিস্তানি হতেন, তাহলে তিনি কোনোদিন টেস্ট খেলতে পারতেন না। ওয়ার্নারের পাশাপাশি ভিরেন্দর শেবাগের উদাহরণও দেন মাকসুদ।

তিনি বলেন, ‘আমি চারদিনের ঘরোয়া ক্রিকেটে খুবই ধারাবাহিক পারফর্মার ছিলাম। প্রথম শ্রেণি ও লিস্ট এ ক্রিকেটে প্রায় ৫০ গড়ে খেলছিলাম। যেমনটা আমি বললাম, দ্রুত রান তুলতে পারা ব্যাটসম্যানদের টেস্টে নেয়ার চলটাই ছিল না পাকিস্তানের ক্রিকেটে।’

‘যে দ্রুত রান করতে পারে, পাকিস্তান ক্রিকেটে তাকে শুধু ওয়ানডে, টি-টোয়েন্টিতে ভাবা হয়। আমার মতে, ডেভিড ওয়ার্নার যদি পাকিস্তানি হতেন, তাহলে কোনোদিনও টেস্ট খেলতে পারত না।’

Related posts

আগামী মরসুমে এই পেনাল্টি পাবেন পান্ডিয়া

News Desk

তামিমের ফিফটির পরেও বিপদে বাংলাদেশ

News Desk

গার্ডিয়ানদের লম্বা চুলের ব্যাট বয় ইয়াঙ্কিজ ফ্র্যাঞ্চাইজিতে ফিরছে

News Desk

Leave a Comment