ডালিম পৃথিবীর অন্যতম স্বাস্থ্যকর খাবার। এটি শরীরের জন্য দারুণ উপকারী। পুষ্টিবিদরা এটাকে স্বর্গীয় ফুড বলেন এর অসাধারণ গুণাগুণের জন্য। ডালিমে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, অ্যান্টি-ভাইরাল এবং অ্যান্টি-টিউমার উপাদান, ভিটামিন এ, সি, ই এবং ফলিক অ্যাসিড রয়েছে। এতে গ্রিন টির চেয়ে তিনগুণ বেশি অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট আছে। নিয়মিত ডালিম খেলে বিভিন্ন ধরনের রোগের ঝুঁকি থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।

প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট থাকায় ডালিম শরীরকে ফ্রি রেডিকেল থেকে মুক্ত রাখে যা অকাল বুড়িয়ে যাওয়ার জন্য দায়ী। ডালিমের বীজ শরীরের ভেতরে রক্ত জমাট বাঁধা রোধ করে। ফলে হৃদরোগ, স্ট্রোকের ঝুঁকি কমে। ডালিমে থাকা অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট উপাদান রক্তে খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়। ডালিম রক্তে অক্সিজেনের সরবরাহ উন্নত করে।

গবেষণায় দেখা গেছে, ডালিমের জুস প্রস্টেট ক্যান্সার প্রতিরোধে কাজ করে। এটি ক্যান্সারের সেল ধ্বংস করতে ভ‚মিকা রাখে। ডালিম স্মৃতিশক্তি বাড়ায় এবং চোখের দৃষ্টিও উন্নত করে। ডালিমে থাকা পিউনিসিক অ্যাসিড কোলেস্টেরল যেমন কমায় তেমনি উচ্চ রক্তচাপ কমাতেও সাহায্য করে। ফাইবার হজমের দারুণ সহায়ক। কিন্তু আমাদের জীবন-যাপন পদ্ধতিতে জাঙ্ক ফুড যুক্ত হওয়ার কারণে অনেক সময় ফাইবার থেকে শরীর বঞ্চিত হয়।

নিয়মিত ডালিম খেলে এই সংকট অনেকটাই কেটে যাবে। কারণ একটা ডালিমে দিনের চাহিদার শতকরা ৪৫ ভাগ ফাইবার থাকে। বাতজনিত সমস্যা কমাতে কার্যকরী ডালিম। অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি উপাদান, ভিটামিন থাকায় ডালিম শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। সেই সঙ্গে শরীরের যে কোনো ধরনের সংক্রমণ কমায়।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া, মানবকণ্ঠ

Related posts

কোভিড এবং ফ্লুতে আক্রান্ত হওয়ার মধ্যে মাস্ক ম্যান্ডেটগুলি বেশ কয়েকটি রাজ্যের হাসপাতালে ফিরে আসে

News Desk

গ্রীষ্মের গলে যাওয়া: চরম তাপ আপনার মেজাজ এবং মানসিক স্বাস্থ্যকে কীভাবে প্রভাবিত করতে পারে তা এখানে

News Desk

পক্ষাঘাতগ্রস্ত রোগীদের জন্য অগ্রগতি: বাহু, হাত এবং আঙুলের নড়াচড়া পুনরুদ্ধার করার জন্য প্রথমে ইমপ্লান্ট করা ডিভাইস স্থাপন করা হয়

News Desk

Leave a Comment