free hit counter
২০১৯ এর ডিসেম্বরেই করোনা ছিল যুক্তরাষ্ট্রে?
আন্তর্জাতিক

২০১৯ এর ডিসেম্বরেই করোনা ছিল যুক্তরাষ্ট্রে?

যুক্তরাষ্ট্রে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর খোঁজ প্রথম পাওয়া যায় কবে? এতদিন পর্যন্ত জানা যাচ্ছিল উহান ফেরত ওয়াশিংটনের এক বাসিন্দার শরীরে ২০২০ সালের ২১ জানুয়ারি প্রথম করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়। এর কিছুদিন পর বিশেষজ্ঞরা ঘোষণা দেন কয়েক সপ্তাহ ধরেই যুক্তরাষ্ট্রে করোনা ভাইরাস রয়েছে।

কিন্তু মঙ্গলবার নতুন এক গবেষণায় পাওয়া গেল অন্য তথ্য। এখানে বলা হচ্ছে, ২০২০ সালের ২১ জানুয়ারির আরও অনেক আগে থেকেই আসলে যুক্তরাষ্ট্রে করোনা আক্রান্ত রোগী ছিল। পাঁচটি রাজ্যের ৭ জনের রক্তে করোনার অ্যান্টিবডি পাওয়ার পর গবেষকরা বলছেন, যুক্তরাস্ট্রে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার আগেই এ পাঁচজন সম্ভবত করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন। এর অর্থ হলো ইলিনয়েসে মোটামুটি ২০১৯ সালের ২৪ ডিসেম্বরের দিক থেকেই করোনা ভাইরাস ছিল, যদিও আনুষ্ঠানকিভাবে সেখানে করোনা পাওয়া যায় প্রায় এক মাস পর।

বিশেষজ্ঞদের অনেকে বলছেন, কিন্তু গবেষণাটি ত্রুটিপূর্ণ। এ গবেষণায় যে অ্যান্টিবডির কথা বলা হয়েছে, তা যে সাধারণ সর্দি-কাশির জন্য করোনা ভাইরাস থেকেও হতে পারে, এ গবেষণায় সে সম্ভাবনার কথা কোথাও উল্লেখ করা হয়নি। এছাড়া পরীক্ষার ফলাফলে ত্রুটি থাকতে পারে, সে কথাও কোথাও উল্লেখ করা হয়নি। এছাড়া যাদের শরীরে অ্যান্টিবডি পাওয়া গেছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে তাদের ভ্রমণ ইতিহাসেরও কোনো উল্লেখ করা হয়নি।

ইউনিভার্সিটি অব পেনসিলভেনিয়ার ইমিউনোলোজিস্ট স্কট হেন্সলি বলছেন, সামান্য এ কয়জনের ফলাফল থেকে এটা বলা যায় না যে, সত্যিই আগে থেকেই যুক্তরাষ্ট্রে করোনা ছিল। কারণ, যেকোনো ত্রুটির কারণেই এমন ফল আসতে পারে।

জন্স হপকিন্স ব্লুমবার্গ স্কুল অব পাবলিক হেলথের এপিডেমিওলোস্টি কেরি অ্যালথফ বলছেন, পরীক্ষা না করা পর্যন্ত প্রকৃত চিত্র বোঝার উপায় ছিল না। শুরুর দিকে এসব রাজ্যে যখন আমরা করোনা রোগী আছে বলে ধারণা করছিলাম না, তখন আসলে এসব রাজ্যে বহু জন আক্রান্ত হয়েছিলেন।

যেকোনা মহামারি শুরুর দিকেই অশনাক্ত রোগী থাকা একেবারে অস্বাভাবিক কিছু নয়।

ইউনিভার্সিটি অব শিকাগোর একজন জীববিজ্ঞানী তার একটি মডেলে দেখিয়েছেন ২০২০ সালের ১ মার্চের মধ্যে ইলিনয়েসে ১০ হাজার করোনা আক্রান্ত রোগী ছিল।

ক্লিনিক্যাল ইনফেকশাস ডিজিজেস নামে একটি জার্নালে এ গবেষণাটি প্রকাশিত হয়েছে। এতে ২৪ হাজার মানুষের রক্তের নমুনা বিশ্লেষণ করা হয়েছে। এরমধ্যে জানুয়ারির ২ থেকে ১৮ মার্চের মধ্যে রক্ত দিয়েছেন এমন নয়জনের শরীরে করোনা ভাইরাসের অ্যান্টিবডি পাওয়া গেছে। এরমধ্যে সাত জন রক্ত দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রে প্রথম করোনা শনাক্ত আগেই।

সূত্র : নিউ ইয়র্ক টাইমস।

Related posts

লকডাউনে যেসব কারণে বাইরে যাওয়া যাবে

News Desk

দুই ডোজ টিকা নিলেও নিস্তার নেই ডেল্টা থেকে

News Desk

খুলনা ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৪৫ জনের মৃত্যু

News Desk