free hit counter
আন্তর্জাতিক

লিমান শহর রুশ সেনা মুক্ত করলো ইউক্রেন

লিমান শহরে সতর্ক অবস্থানে ইউক্রেনীয় বাহিনী। ছবি: রয়টার্স

পুতিন ইউক্রেনের চার অঞ্চলকে নিজেদের ঘোষণা করে বিপদেই রয়েছেন। রুশ ফেডারেশনে যুক্ত করার চুক্তি স্বাক্ষরের এক দিন পরই দোনেৎস্কের গুরুত্বপূর্ণ শহর লিমানের নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছেন পুতিন।

শনিবার (১ অক্টোবর) শহরটির নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী।

শুক্রবার রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনের খেরসন, জাপোরিঝঝিয়া, দোনেৎস্ক ও লুহানস্ক অঞ্চলের প্রায় ৯০ হাজার বর্গকিলোমিটার এলাকা রুশ ফেডারেশনে যুক্ত করার চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।

এ সময় তিনি বলেছিলেন, খেরসন, জাপোরিঝঝিয়া, দোনেৎস্ক ও লুহানস্কের বাসিন্দারা আজীবনের জন্য আমাদের দেশের নাগরিক হয়ে গেল। আমরা যেকোনো মূল্যে আমাদের দেশ রক্ষা করব।

তবে পুতিনের ঘোষণার দিন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছিলেন, রাশিয়ার দখলে থাকা ভূখণ্ড পুনরুদ্ধারে তারা যুদ্ধ চালিয়ে যাবেন। লিমান শহর পুনরুদ্ধারের মাধ্যমে তাঁরা সেই ইঙ্গিত দিলেন।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ও লিমান শহর থেকে সরে যাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানিয়েছে, শহরটি ইউক্রেনের সেনারা ঘিরে ফেলেছেন। তাই ঝুঁকি থাকায় সেনাদের সরিয়ে নেয়া হয়েছে।

এর আগে ইউক্রেনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এক টুইট বার্তায় জানায়, তাদের বিমানবাহিনী লিমানে ঢুকেছে। এ ছাড়া টুইটের সঙ্গে একটি ভিডিও জুড়ে দেওয়া হয়। এতে দেখা যায়, ইউক্রেনের সেনারা তাঁদের জাতীয় পতাকা নিয়ে লিমান শহরের নামসংবলিত একটি ফলকের পাশে দাঁড়িয়ে আছেন।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের চিফ অব স্টাফের পক্ষ থেকেও একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছে। এতে এক ইউক্রেনীয় সেনাকে বলতে শোনা যায়, ১ অক্টোবর আমরা নিজেদের ভূমিতে পতাকা তুললাম। লিমান ইউক্রেনেরই থাকবে।

এমকে

Source link

Bednet steunen 2023