free hit counter
আন্তর্জাতিক

ক্ষমতাচ্যুতির পথে লিজ ট্রাস

লিজ ট্রাস। ফাইল ছবি

চলতি সপ্তাহেই লিজ ট্রাসকে সরাতে চেষ্টা করবেন ব্রিটিশ এমপিরা। দেশটিতে ক্ষমতায় আসার পাঁচ সপ্তাহ যেতে না যেতেই আবার ক্ষমতা হারানোর শঙ্কায় রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী লিজ ট্রাস। অনেক এমপি ধারণা করছেন, বড়জোর এক সপ্তাহ ক্ষমতায় থাকতে পারেন তিনি।

এমনকি শতাধিক এমপি তার বিরুদ্ধে অনাস্থা দিতে যাচ্ছেন। অর্থনৈতিক পরিকল্পনার যে প্রচারণা চালিয়ে ক্ষমতায় এসেছিলেন তা থেকে পুরোপুরি বিপরীত পদক্ষেপ নেয়ায় তার প্রধানমন্ত্রিত্ব এখন সংকটের মুখে। খবর ‍সিএনএনের।

বিশ্লেষকরা বলছেন, এমপিরা চলতি সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী লিজ ট্রাসকে ক্ষমতাচ্যুত করার চেষ্টা করলে দেশটির আসন্ন নির্বাচনকে ঘিরে পরিস্থিতি ঘোলাটে করতে পারে।

ঋষি সুনাক। ফাইল ছবি

প্রধানমন্ত্রী হবেন ঋষি সুনাক

প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকালেই ঋষি সুনাক আভাস দিয়েছিলেন, ‘অর্থনীতির রূপকথা’ শোনাচ্ছেন লিজ ট্রাস। কর ব্যবস্থায় যে বিপুল কাটছাঁটের অবতারণা করেছিলেন ট্রাস, তা বাস্তবায়িত হলে সুদের হার দ্রুত বাড়বে এবং বন্ধকী ঋণের সুদেও তার প্রভাব পড়বে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন তিনি। তারপরেও প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন ট্রাস এবং ক্ষমতায় আসার ৩৭ দিনের মাথায় অর্থমন্ত্রী কোয়াসি কোয়ারটেংকে বরখাস্ত করে পূর্বঘোষিত সংক্ষিপ্ত বাজেটের একাংশ ফিরিয়ে নেয়ার কথা বলেছেন। অপরদিকে, সুনাকের পথে হেঁটে কর্পোরেট করের হার ১৯ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ফের ২৫ শতাংশ করারও পক্ষপাতী তিনি।

এতে যুক্তরাজ্যের রাজনীতিতে ঋষি সুনাকই প্রাসঙ্গিক হয়ে উঠেছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, সাবেক মন্ত্রী ও এমপি মিলিয়ে ১৫-২০ জনকে একটি নৈশভোজে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন সুনাকের সমর্থকেরা। কখন, কীভাবে ট্রাসকে সরিয়ে সুনাক ও পেনি মরডন্টের জুটিকে মন্ত্রিসভার দুই শীর্ষ পদে বসানো যায়, ওই নৈশভোজে তারই পরিকল্পনা হবে। কিন্তু বিষয়টা এতটাও সহজ হবে না বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

Source link

Bednet steunen 2023