free hit counter
আন্তর্জাতিক

কৃষ্ণসাগরে জাহাজ চলাচল অগ্রহণযোগ্য: রাশিয়া

ছবি: সংগৃহীত

শস্য রপ্তানি চুক্তি রাশিয়া স্থগিত করার পর কৃষ্ণসাগরের নিরাপত্তা করিডোর দিয়ে জাহাজ চলাচল ‘অগ্রহণযোগ্য’ বলে মন্তব্য করেছে মস্কো।

জাতিসংঘ ও তুরস্কের মধ্যস্থতায় গত ২২ জুলাই মস্কো ও কিইভের মধ্যে স্বাক্ষরিত ওই চুক্তির ফলে ইউক্রেন তাদের শস্য রপ্তানি ফের শুরু করতে পেরেছিল। খবর রয়টার্সের।

কিন্তু মস্কো তাদের কৃষ্ণ সাগরীয় নৌবহরে ইউক্রেনের ড্রোন হামলার অভিযোগ তুলে শনিবার এ চুক্তি স্থগিত করার ঘোষণা দেয়।

এর পর সোমবার এক বিবৃতিতে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে, ‘ইউক্রেনীয় নেতৃবৃন্দ ও ইউক্রেনীয় সশস্ত্র বাহিনীর কমান্ড ওই নিরাপত্তা করিডোর ব্যবহার করে রুশ ফেডারেশনের বিরুদ্ধে সামরিক অভিযান চালানোর পর ওই পথ দিয়ে জাহাজ চলাচল অগ্রহণযোগ্য। রাশিয়া এ চুক্তি থেকে ‘নিজেদের সরিয়ে নিয়ে ক্ষুধা দিয়ে বিশ্বকে ব্ল্যাকমেইলিং করছে’ বলে অভিযোগ করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি।

রাশিয়া পরিষ্কার করে জানিয়েছে, আন্তর্জাতিক মধ্যস্থতায় ইউক্রেনের সঙ্গে হওয়া ওই শস্য চুক্তি থেকে রাশিয়া সরে যায়নি শুধু সেটি স্থগিত করেছে। কিন্তু ওই রুটে জাহাজ চলাচল অব্যাহত থাকলে রাশিয়া কী করবে, সে বিষয়ে কিছু বলেনি রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়।

মস্কোর শনিবারের ঘোষণা সত্ত্বেও ওই শস্য চুক্তির আওতায় সোমবার রেকর্ড পরিমাণ ৩ লাখ ৫৪ হাজার ৫০০ টন কৃষি পণ্যবাহী জাহাজ ইউক্রেনীয় বন্দরগুলো ছেড়ে গেছে বলে ইউক্রেনের ওদেসা অঞ্চলের সামরিক প্রশাসনের মুখপাত্র জানিয়েছেন।

সোমবার এর আগে ক্রেমলিন বলেছে, রাশিয়ার নিরাপত্তা প্রতিশ্রুতি ছাড়া ওই শস্য চুক্তি কার্যকর হওয়ার সম্ভাবনা খুব কম আর এর ধরনও পাল্টে যাবে- অনেক বেশি ঝুঁকিপূর্ণ, বিপজ্জনক ও নিশ্চয়তাহীন হয়ে পড়বে।

Source link

Bednet steunen 2023