free hit counter
করোনায় ৯৩৪৬ শিশু অনাথ হয়েছে ভারতে
আন্তর্জাতিক

করোনায় ৯৩৪৬ শিশু অনাথ হয়েছে ভারতে

ভারতে ২০২০ সালের মার্চ থেকে মহামারি করোনা প্রাদুর্ভাব শুরু হয়। দ্বিতীয় দফার প্রকোপে এখন দেশটির অবস্থা বিপর্যস্ত। গত বছরের মার্চ থেকে করোনায় বাবা-মা হারিয়ে দেশটির নয় হাজারের বেশি শিশু অনাথ হয়েছে। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার এমন তথ্যই জানিয়েছে।

মঙ্গলবার সরকার সুপ্রিম কোর্টকে জানিয়েছে, করোনায় এ পর্যন্ত অনাথ হয়েছে ৯ হাজার ৩৪৬ শিশু। জাতীয় শিশু অধিকার রক্ষা কমিশন বলেছে, এই শিশুদের জন্য ছয় স্তর বিশিষ্ট বিশেষ একটি প্রকল্প চালু করেছে কেন্দ্রীয় সরকার; যা তাদের ভবিষ্যৎ সুনিশ্চিত করবে।

কমিশন এ ব্যাপারে সুপ্রিম কোর্টে একটি হলফনামা পেশ করেছে। তারা জানিয়েছে, এই শিশুদের নাম নথিভুক্ত করা হয়েছে ‘বাল স্বরাজ’ নামে নতুন একটি পোর্টালে। ওই পোর্টালের মাধ্যমেই তাদের কেন্দ্রীয় সরকার গৃহীত প্রকল্পের সুযোগ সুবিধা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে।

ভারতের জাতীয় শিশু অধিকার রক্ষা কমিশন বা এনসিপিসিআর’র দেওয়া তথ্য অনুযায়ী এর মধ্যে ১ হাজার ৭৪২ শিশু বাবা-মা উভয়কে হারিয়েছে। এছাড়া ৭ হাজার ৪৬৪ শিশু হয় মহামারি করোনায় হয় বাবা নয়তো তার মা কে হারিয়েছে। আর গৃহহীন হয়েছে ১৪০ শিশু।

সবার বয়স ১৭ বছরের মধ্যে। করোনায় অনাথ এসব শিশুর মধ্যে ৭৮৮ শিশুর বয়স ৩ বছরের কম। তারা সবচেয়ে বেশি দুর্বল ও তাদের যত্নের প্রয়োজন সবচেয়ে বেশি বলে চিহ্নিত করা হয়েছে। আর এই বয়সী শিশুদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রয়েছে বড় রাজ্য উত্তরপ্রদেশে।

অনাথ এসব শিশুদের মধ্যে ৪-৭ বছর বয়সীর সংখ্যা ১ হাজার ৫১৫। এছাড়া ৮-১৩ বছর বয়সী শিশু রয়েছে ৩ হাজার ৭১১ জন। আরও ১ হাজার ৬২০ শিশুর বয়স ১৪-১৫ বছরের মধ্যে। করোনায় অনাথ হওয়া এসব শিশুর ১ হাজার ৭১২ জনের বয়স ১৬-১৭ বছর।

কমিশন জানিয়েছে, এই শিশুদের মধ্যে ১ হাজার ২২৪ জন অভিভাবকের কাছে থাকছে। আর দত্তক-কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে ৩১ জনকে। অভিভাবক নেই ৯৮৫ জনের। তারা পরিবারের অন্য সদস্যদের কাছে থাকছে। বাবা অথবা মায়ের কাছে রয়েছে ৬ হাজার ৬১২ শিশু।

Related posts

একদিনে ৩৬ জনের মৃত্যু, শনাক্ত আড়াই হাজার ছাড়াল

News Desk

ভারত টিকা রফতানি বন্ধ করায় ‘ভ্যারিয়েন্ট’ ছড়ানোর ঝুঁকিতে ৯১ দেশ

News Desk

১২ ও ১৩ এপ্রিলও থাকবে কঠোর নিষেধাজ্ঞা

News Desk