free hit counter
আন্তর্জাতিক

অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরক্ষা বাহিনীতে বেড়েছে আত্মহত্যার হার

অস্ট্রেলীয় সেনা। ছবি: সংগৃহীত

# জাতীয় বিপর্যয় ঘোষণা

অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরক্ষা বাহিনীতে পড়েছে আত্মহত্যার হিড়িক। প্রশান্ত মহাসাগরীয় এই দেশের বাহিনীর সাবেক ও বর্তমান সদস্যদের মধ্যে বেড়েছে আত্মহত্যার এ হার।

বিবিসির প্রতিবেদনে অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরক্ষা বাহিনীর সাবেক ও বর্তমান সদস্যদের মধ্যে আত্মহত্যার উচ্চ হারের বিষয়টি উঠে আসার পর একে ‘জাতীয় ট্র্যাজেডি’ হিসেবে উল্লেখ করেছে অস্ট্রেলীয় সরকার।

গত ২০ বছরে আফগানিস্তান ও ইরাকে যুদ্ধের সময় অস্ট্রেলিয়া যত সেনা হারিয়েছে, তার চেয়ে বেশি সাবেক ও বর্তমান সেনা আমরা হারিয়েছি আত্মহত্যার কারণে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত আটমাস ধরে কয়েকশ লোকের সাক্ষাৎকার নিয়েছে অস্ট্রেলিয়ার শীর্ষ সরকারি একটি তদন্ত সংস্থা। রাজকীয় কমিশনের নেয়া ওই সাক্ষাৎকারে দেখা গেছে, অত্যাধিক জটিল প্রশাসনিক পদ্ধতির কারণে অস্ট্রেলিয়ার চাকরিজীবী নারী ও পুরুষ সংগ্রাম করছেন ও চাকরি থেকে অব্যাহতির পর নানামুখী সহায়তা সমর্থনের অভাবে জীবনযাপন করছেন।

এদিকে এই প্রতিবেদনে প্রকাশের পরপরই ক্ষমা প্রার্থনা করেছে অস্ট্রেলীয় সরকার। সেই সঙ্গে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা সুপারিশগুলোর বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ারও প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে। দেশটির ভেটেরান্স বিষয়ক মন্ত্রী ম্যাট কিয়োগ বলেছেন, এটি খুবই বিপর্যয়কর যে গত ২০ বছরে আফগানিস্তান ও ইরাকে যুদ্ধের সময় অস্ট্রেলিয়া যত সেনা হারিয়েছে, তার চেয়ে বেশি সাবেক ও বর্তমান সেনা আমরা হারিয়েছি আত্মহত্যার কারণে।

প্রতিবেদনটি সামনে আসার পর পরই ক্ষমা চেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার মন্ত্রী ম্যাট কিয়োগ। তিনি প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, প্রতিবেদনে কমিশনের উল্লেখিত সুপারিশগুলো তার সরকার ‘অগ্রাধিকার ভিত্তিতে’ সমাধান করবে। আর এ লক্ষ্যে গত মে মাসে ক্ষমতায় আসার পর ইতোমধ্যে এ সরকার অতিরিক্ত ৫০০ কর্মীও নিয়োগ করেছে।

টিএপি

Source link