নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে স্লোগান দেওয়া নিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে কমপক্ষে সাত জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে একজনকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী বনি ও মানিক জানান, সম্মেলনকে কেন্দ্র করে শনিবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে নাটোর সার্কিট হাউস চত্বরে অতিথিদের আগমন উপলক্ষে এমপি শিমুল (শফিকুল ইসলাম শিমুল) গ্রুপ ও রমজান (শরিফুল ইসলাম রমজান, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান) গ্রুপ অবস্থান নেয়। এ সময় উভয় গ্রুপই নিজেদের প্রার্থীর পক্ষে স্লোগান দিতে থাকে। হঠাৎ উভয় গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা-ধাওয়া ও সংঘর্ষ শুরু হয়। এ সময় পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান চুন্নু, প্রচার সম্পাদক মশিউর রহমান, ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর
মীর নাফিউল ইসলাম ও তোতাসহ সাত জন আহত হন। আহতদের মধ্যে অবস্থা খারাপ হওয়ায় তোতা কে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মালেক শেখ ও সদর থানার ওসি মুনসুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, নাটোর-২ আসনের এমপি শফিকুল ইসলাম শিমুল ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান দুই জনই কাউন্সিলে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী।

এ বিষয়ে ওসি মনসুর রহমান বলেন, ‘উভয়পক্ষের স্লোগান এবং শোডাউনকে কেন্দ্র করে ওই ঘটনা ঘটেছে। তবে বড় কোনও ধরনের ঘটনা ঘটেনি। পরিস্থিতি এখন পুলিশের নিয়ন্ত্রণে।’

সম্মেলনে দুই সদস্যের নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের কমিটি গঠন করা হয়েছে। এই কমিটিতে সভাপতি করা হয়েছে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রেজাউল রহিম লালকে ও সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে পাবনা সদর আসনের সংসদ সদস্য গোলাম ফারুক প্রিন্সকে। কমিটিকে আগামী এক মাসের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ করারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Source link

Related posts

মুন্সীগঞ্জ-মাওয়া সড়কে প্রাণ গেলো ২ নারীর 

News Desk

নিখোঁজের পাঁচ দিন পর স্কুলশিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার, চাচাসহ গ্রেফতার ৩

News Desk

পরিবেশ নোংরা করতে আমরা এগিয়ে

News Desk

Leave a Comment