Image default
বাংলাদেশ

বুধবার থেকে ঢাকা-কক্সবাজার রুটে চলবে ‘পর্যটক এক্সপ্রেস’

বুধবার (১০ জানুয়ারি) থেকে কক্সবাজার-ঢাকা রুটে যুক্ত হচ্ছে ‘পর্যটক এক্সপ্রেস’ নামে আরও এক জোড়া নতুন ট্রেন। এ ট্রেনের টিকিট বিক্রি শুরু হয় গত বুধবার (৩ জানুয়ারি) সকাল ৮টা থেকে। এ ট্রেনেও চট্টগ্রামের যাত্রীদের জন্য নির্ধারিত থাকবে দুটি বগি। বুধবার থেকে নতুন ট্রেন চালানোর জন্য সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। প্রথম দিন ট্রেনটি ঢাকা থেকে ছেড়ে কক্সবাজার যাবে।

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের চিফ অপারেটিং সুপারিনটেনডেন্ট মো. শহিদুল ইসলাম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘যাত্রীদের চাহিদার বিষয়টি মাথায় রেখে কক্সবাজার রুটে নতুন এক জোড়া বিরতিহীন আন্তনগর ট্রেন “পর্যটক এক্সপ্রেস” ১০ জানুয়ারি থেকে চলাচল করবে। বিরতিহীন ট্রেনটি ঢাকা থেকে ছেড়ে চট্টগ্রাম স্টেশনে থামবে। এরপর ট্রেনটি সরাসরি কক্সবাজার স্টেশনে গিয়ে থামবে। মাঝখানে আর কোনও স্টেশনে থামবে না এ ট্রেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘চট্টগ্রামের যাত্রীদের জন্য এ ট্রেনেও একটি নন-এসি এবং একটি এসি বগি বরাদ্দ থাকবে। এর মধ্যে এসি বগিতে আসন থাকবে ৫৫টি এবং নন-এসি বগিতে থাকবে ৬০টি আসন। চট্টগ্রাম থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত নতুন ট্রেন চালানোর পরিকল্পনা আছে রেলওয়ে কর্মকর্তাদের।’

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল সূত্র জানায়, নতুন এ ট্রেনে কোচ থাকবে ১৬টি। এর মধ্যে মোট আসন সংখ্যা ৭৮৫টি। কক্সবাজার থেকে ঢাকাগামী ট্রেনের নম্বর ৮১৫ এবং ঢাকা থেকে কক্সবাজারগামী এ ট্রেনের নম্বর ৮১৬।

কক্সবাজার থেকে ‘পর্যটক এক্সপ্রেস’ ট্রেনটি রাত ৮টায় ছেড়ে চট্টগ্রাম পৌঁছাবে রাত ১০টা ৫০ মিনিটে। চট্টগ্রামে ২৫ মিনিট বিরতি দিয়ে ট্রেনটি রাত সোয়া ১১টায় ছেড়ে রাত ৩টা ৫০ মিনিটে পৌঁছাবে ঢাকা বিমানবন্দর স্টেশনে। সেখানে ৩ মিনিট বিরতি দিয়ে রাত ৩টা ৫৩ মিনিটে ছেড়ে রাত সাড়ে ৪টায় কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছাবে।

একইভাবে, ট্রেনটি ঢাকা রেলওয়ে স্টেশন থেকে ভোর সোয়া ৬টায় ছেড়ে বিমানবন্দর স্টেশনে পৌঁছাবে ভোর ৬টা ৩৮ মিনিটে। সেখানে ৫ মিনিট বিরতি দিয়ে ভোর ৬টা ৪৩ মিনিটে ছেড়ে সকাল ১১টা ২০ মিনিটে চট্টগ্রাম পৌঁছাবে। সেখানে ২০ মিনিট বিরতি দিয়ে সকাল ১১টা ৪০ মিনিটে ছেড়ে কক্সবাজার স্টেশনে পৌঁছাবে বিকাল ৩টায়।

‘পর্যটক এক্সপ্রেস’ ট্রেনে ঢাকা-কক্সবাজার এসি (স্নিগ্ধা) ভাড়া এক হাজার ৩২৫ টাকা এবং নন-এসি  (শোভন চেয়ার) ভাড়া ৬৯৫ টাকা। এ ট্রেনে চট্টগ্রাম থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত ভাড়া (এসি) ৪৭০ টাকা এবং (নন-এসি) ২৫০ টাকা।

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের চিফ অপারেটিং সুপারিনটেনডেন্ট (এসিওপিএস) এর কার্যালয় সূত্র জানায়, ১ ডিসেম্বর থেকে ঢাকা-কক্সবাজার রুটে ‘কক্সবাজার এক্সপ্রেস’ নামে প্রথম বাণিজ্যিক ননস্টপ আন্তনগর ট্রেন চলাচল করছে। ঢাকা থেকে কক্সবাজারের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া ট্রেনটির নম্বর ৮১৩ ও কক্সবাজার থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা ট্রেনের নম্বর ৮১৪। ট্রেনটিতে মোট আসন ৭৮০টি।

‘কক্সবাজার এক্সপ্রেস’ ট্রেনটি দুপুর ১২টা ৪০ মিনিটে কক্সবাজার আইকনিক স্টেশন থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসে। ট্রেনটি চট্টগ্রামে পৌঁছায় বিকাল ৩টা ৪০ মিনিটে। ২০ মিনিট বিরতি শেষে চট্টগ্রাম থেকে ট্রেনটি ছেড়ে যায় বিকাল ৪টায়। ঢাকায় পৌঁছায় রাত ৯টা ৫ মিনিটে।

একই ভাবে, রাত সাড়ে ১০টায় ট্রেনটি ঢাকা থেকে কক্সবাজারের উদ্দেশে ছেড়ে চট্টগ্রাম পৌঁছায় ভোর ৩টা ৪০ মিনিটে। ২০ মিনিট বিরতির পর ভোর ৪টায় ট্রেনটি চট্টগ্রাম স্টেশন থেকে ছেড়ে কক্সবাজার পৌঁছায় সকাল ৬টা ৪০ মিনিটে।

এর আগে, গত ১১ নভেম্বর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দোহাজারী-কক্সবাজার রেললাইন উদ্বোধন করেন।

কক্সবাজার রেললাইন প্রকল্প সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ১৮ হাজার ৩৪ কোটি ৪৭ লাখ টাকা ব্যয়ে চট্টগ্রাম থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত ১০০ কিলোমিটার রেললাইন প্রকল্পের কাজ বাস্তবায়ন করা হয়। ২০১১ সালের ৩ এপ্রিল দোহাজারী-রামু-কক্সবাজার পর্যন্ত মিটারগেজ রেলপথ নির্মাণকাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর মধ্যে চট্টগ্রামের দোহাজারী থেকে রামু পর্যন্ত ৮৮ কিলোমিটার এবং রামু থেকে কক্সবাজার ১২ কিলোমিটার।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের প্রায় সাত বছর পর ২০১৮ সালে ডুয়েলগেজ এবং সিঙ্গেল ট্র্যাক রেললাইন প্রকল্পের নির্মাণকাজ শুরু হয়। প্রথমে প্রকল্প ব্যয় ধরা হয়েছিল এক হাজার ৮৫২ কোটি টাকা। পরে প্রকল্প প্রস্তাব সংশোধন করে ব্যয় বেড়ে দাঁড়ায় ১৮ হাজার ৩৪ কোটি ৪৭ লাখ টাকা।

Source link

Related posts

নেতাকর্মীদের নিয়ে মণিহার হলে ‘মুজিব’ দেখলেন এমপি কাজী নাবিল

News Desk

জয়পুরহাটের কুসুম্বায় ৩ গুণ বেশি ভোটে নৌকার প্রার্থীর জয়

News Desk

‘নির্বাচন বানচালের চক্রান্ত হলে বিএনপি-জামায়াতকে দাঁতভাঙা জবাব দেওয়া হবে’

News Desk

Leave a Comment