Image default
বাংলাদেশ

নোয়াখালীতে যুবলীগের দুই পক্ষের সমাবেশ ঘিরে ১৪৪ ধারা জারি

যুবলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার কবিরহাট বাজারে একই সময় কাছাকাছি স্থানে দুই পক্ষের তারুণ্যের সমাবেশ ডাকাকে কেন্দ্র করে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির আশঙ্কায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে উপজেলা প্রশাসন। এ সময় কবিরহাট পৌর এলাকায় গণজমায়েত, সভাসমাবেশ, মিছিল, র‌্যালি ও শোভাযাত্রা নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২ নভেম্বর) দুপুর ১টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত এ আদেশ বলবৎ থাকবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফাহিমা সুলতানা। এ আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে ফৌজদারী কার্যবিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানান তিনি। এ সংক্রান্ত একটি আদেশ ইতোমধ্যে জারি করা হয়েছে।

জানা গেছে, যুবলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টায় কবিরহাট সরকারি কলেজ মাঠে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করে উপজেলা যুবলীগ। একই সময় কলেজ গেট সংলগ্ন মুজিব চত্বরে একই কর্মসূচির ডাক দেয় পৌরসভা যুবলীগ। দুপুরের মধ্যে সমাবেশকে কেন্দ্র করে স্টেজ নির্মাণের কাজও শুরু করা হয়। যুবলীগের দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে গত কয়েকদিন ধরে উত্তেজনা বিরাজ করছিল। ফলে উভয় পক্ষের নেতাকর্মীদের মধ্যে বিরাজমান উত্তেজনাকে কেন্দ্র করে সভাস্থলসহ কবিরহাট পৌর এলাকায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে এবং জনসাধারণের জানমালের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে পৌর এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করে উপজেলা প্রশাসন। ইতোমধ্যে পৌর এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। টহলে থাকবে র‌্যাব ও বিজিবি।

পৌরসভা যুবলীগের সভাপতি আবুল বাশার বাবুল বলেন, ‘আমরা কেন্দ্রের নির্দেশে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করেছি। উপজেলা যুবলীগের ওপর আমাদের আস্থা না থাকায় আমরা পৌরসভার পক্ষ থেকে আলাদা আয়োজন করেছি।’

উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আবু জাফর আবির বলেন, ‘কেন্দ্রীয় যুবলীগের আদেশক্রমে আমরা বৃহস্পতিবার বিকালে কবিরহাট বাজারে র‌্যালি ও পরে সরকারি কলেজ মাঠে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করি। পৌরসভা যুবলীগকে আমাদের সঙ্গে সমন্বয় করে সভা করার আহ্বান করা হলেও তারা নিজেরাই পাল্টা সমাবেশের ডাক দিয়েছে। আমাদের দলের মধ্যে কোনও গ্রুপিং নেই কিন্তু তারা কেন এটা করেছে তা আমার জানা নেই।’

কবিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ইতোমধ্যে পৌর এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। ১৪৪ ধারা চলাকালীন সময় র‌্যাব ও বিজিবি টহলে থাকবে।’

Source link

Related posts

যশোরে একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্তের রেকর্ড

News Desk

কাজীরহাট বন্দর ব্রিজের দু’প্রান্তে মরণফাঁদ,

News Desk

কর্ণফুলী টানেলে মধ্যরাতে কার রেসিং, ৭ কার চালকের বিরুদ্ধে মামলা

News Desk

Leave a Comment