Image default
বাংলাদেশ

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে গাড়ি ভাঙচুর ও ককটেল বিস্ফোরণ

অবরোধের তৃতীয় দিনে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে আগুন জ্বালিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপির নেতাকর্মীরা। এ সময় পুলিশ তিন জনকে গ্রেফতার করেছে। বৃহস্পতিবার (২ নভেম্বর) সকালে মহাসড়কের সিদ্ধিরগঞ্জের মৌচাক ও সানারপাড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানা বিএনপির সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক টিএইচ তোফাসহ তিন জন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মামুন মাহমুদের নেতৃত্বে মহাসড়কের মাদানীনগর এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে করে মিছিল করে কয়েকজন। এ সময় পুলিশ ধাওয়া দিয়ে তিন জনকে গ্রেফতার করে। অন্যদিকে মহাসড়কের সিদ্ধিরগঞ্জ সাজেদা হাসপাতালের সামনে জেলা কৃষক দলের নেতাকর্মীরা দুটি বাস ভাঙচুর করে সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করেন। তবে মহাসড়কের একাধিক স্থানে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে বলে একাধিক সূত্র জানিয়েছে।

জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মামুন মাহমুদ বলেন, ‘সকালে মাদানীনগর এলাকা থেকে আমরা মিছিল বের করেছি। পরে পুলিশ এসে আমাদের চার জন নেতাকর্মীকে আটক করেছে। টিএস তোফা, রুবেল, দেলোয়ার হোসেনসহ চার জনকে আটক করেছে।’

ককটেল বিস্ফোরণের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমাদের নেতাকর্মীদের কেউ ককটেল বিস্ফোরণ করেননি।’

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘সকালে বিএনপির নেতাকর্মীরা অগ্নিসংযোগ করে মিছিল বের করেছে। এ সময় তিন জন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করা হয়। তবে ককটেল বিস্ফোরণের কোনও ঘটনা ঘটেনি।’

Source link

Related posts

৩০ বছরের পেশা ছেড়ে চলে যাচ্ছেন তারা

News Desk

সাংবাদিক রোজিনার জন্য যা করা সম্ভব, সবই করা হবে : তথ্যমন্ত্রী

News Desk

এসএসসি-এইচএসসি ২০২২ সালের পরীক্ষার সংক্ষিপ্ত পাঠ্যসূচি প্রকাশ

News Desk

Leave a Comment