free hit counter
বাংলাদেশ

ছয় বছর আগে ছাত্রী হত্যা মামলায় গৃহশিক্ষকের মৃত্যুদণ্ড

মামলার কাগজপত্র থেকে জানা গেছে, কিশোরী পারুল কেরানীগঞ্জের একটি স্কুলে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল। পারুলের গৃহশিক্ষক ছিলেন আসামি আল মামুন। একপর্যায়ে তাঁদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরে পারুল অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। ২০১৬ সালের ২০ জুলাই রাজধানীর সদরঘাটে বরগুনাগামী একটি লঞ্চের কেবিনে পারুলকে ধারালো ছুরি দিয়ে হত্যা করেন আল মামুন। লঞ্চের কর্মচারীরা তাঁকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

Bednet steunen 2023