free hit counter
বাংলাদেশ

আগুনে ২১ দোকানের সব পুড়ে ছাই

বাগেরহাটে শরণখোলায় ভয়াবহ আগুনে পুড়ে ২১টি দোকান ছাই হয়ে গেছে। শুক্রবার (২৭ মে) উপজেলার রাজাপুর বাজারটিতে আগুন লাগে। কিছু বুঝে ওঠার আগেই আগুন নিয়ন্ত্রনের বাইরে চলে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় প্রায় তিন কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করেছেন ব্যবসায়ীরা। 

বাগেরহাট- ৪ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. আমিরুল আলম মিলন, উপজেলা চেয়ারম্যান রায়হান উদ্দিন শান্ত, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. নুর ই আলম সিদ্দিকী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। পরিদর্শনকালে এমপি মিলন ব্যক্তিগত তহবিল থেকে তাৎক্ষণিকভাবে ক্ষতিগ্রস্তদের ৫০ হাজার টাকা সহায়তা করেন।

শরনখোলা ফায়ার সার্ভিসের কর্মকতার্তা মো. শামসুর রহমান বলেন, মোড়েলগঞ্জ ও শরণখোলার দুটি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে আগুন থেকে আরও শতাধিক দোকান রক্ষা পায়। প্রাথমিকভাবে আগুনে তিন কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানান তিনি। 

ক্ষতিগ্রস্ত দোকান মালিকরা জানান, একটি ইলেকট্রনিক মালামালের দোকান থেকে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। বাজারের অধিকাংশ দোকানিরা বাড়িতে ছিল। আগুনের খবর পেয়ে তারা ছুটে এসে দেখেন সব পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। 

ওষুধ দোকানের মালিক বাদল মন্ডল জানান, তিনি গতকালও দোকানে দুই লাখ টাকার ওষুধ তুলেছিলেন। কিন্তু তার সব শেষ হয়ে গেছে। 

দোকানি পুলিন বৈদ্য জানান, তার প্রায় কোটি টাকার মালামাল পুড়ে ছাই হয়েছে।

 রাজাপুর বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো. হুমায়ুন কবির বলেন, আগুনে ২১টি দোকান পুড়ে ছাই হয়েছে। দোকানগুলোর কোনও মালামাল সরানোর সুযোগ হয়নি। সরকারি সহায়তা না পেলে এরা আর কোনোদিন উঠে দাঁড়াতে পারবে না।

শরণখোলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. নুর ই আলম সিদ্দিকী বলেন, উপজেলা পরিষদ থেকে ইতোমধ্যে পাঁচ হাজার টাকা করে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া আবেদনের প্রেক্ষিতে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে পরবর্তীতে বিধি মোতাবেক সহায়তা করা হবে বলে জানান তিনি। 

 

Source link