free hit counter
অন্যান্য

ইউক্রেনে যুদ্ধ করতে গিয়ে এক মার্কিন নাগরিক নিহত

ইউক্রেনে যুদ্ধ করতে গিয়ে এক মার্কিন নাগরিক নিহত হয়েছেন। একটি শোক সংবাদ ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দেওয়া বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে। রাশিয়ার বিরুদ্ধে ইউক্রেনের হয়ে লড়াইরত হাজারো স্বেচ্ছাসেবী যোদ্ধাদের একজন ছিলেন এই মার্কিন নাগরিক। খবর আল-জাজিরার।

চলতি মাসের শুরুর দিকে দ্য রেকর্ডার পত্রিকার শোক সংবাদ অনুযায়ী, স্টিফেন জাবিয়েলস্কি (৫২) নামের এই মার্কিন নাগরিক গত ১৫ মে নিহত হন। নিউইয়র্ক রাজ্যের উত্তরাঞ্চল থেকে পত্রিকাটি প্রকাশিত হয়। তবে গতকাল সোমবার তাঁর মৃত্যুর সংবাদমাধ্যমটি সামনে আসে।

এক বিবৃতিতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইউক্রেনে জাবিয়েলস্কির মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তাঁর পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলা এবং সব ধরনের কনস্যুলার সহযোগিতা দেওয়া হচ্ছে বলেও তিনি জানান।

যুদ্ধের কারণে মার্কিন নাগরিকদের ইউক্রেনে না যাওয়ার সতর্কতার বিষয়টিও বিবৃতিতে পুনরায় উল্লেখ করেছেন মুখপাত্র। রুশ সরকার কর্তৃক মার্কিন নাগরিকদের আলাদাভাবে চিহ্নিত করার সম্ভাবনার কথাও এতে বলা হয়েছে। মার্কিন নাগরিকদের অবিলম্বে ইউক্রেন ছাড়া উচিত বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

এদিকে, সূত্রের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা ইন্টারফ্যাক্স জানিয়েছে, ইউক্রেনে আটক দুই মার্কিন নাগরিককে বর্তমানে রুশ নিয়ন্ত্রিত দোনেৎস্ক অঞ্চলে রাখা হয়েছে।

গতকাল ক্রেমলিন বলেছে, ইউক্রেনে আটক দুই মার্কিন নাগরিক ভাড়াটে যোদ্ধা। তাঁরা জেনেভা কনভেনশন অনুযায়ী যুদ্ধবন্দীর মর্যাদা পাবেন না। তাঁদের নিজেদের কর্মের জন্য বিচারের মুখোমুখি হওয়া উচিত।

গত শুক্রবার রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইগর কোনাশেঙ্কভ এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, ইউক্রেনে চলমান সংঘাতে ৬৪টি দেশ থেকে আসা ভাড়াটে যোদ্ধা ও সামরিক বিশেষজ্ঞরা যুক্ত হয়েছেন। তাঁদের মধ্যে প্রায় দুই হাজার বিদেশি ভাড়াটে যোদ্ধা নিহত হয়েছেন।

এতে আরও বলা হয়, উত্তর আমেরিকা মহাদেশ থেকে ভাড়াটে যোদ্ধা প্রেরণে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটি থেকে ৫৩০ জন ইউক্রেনে এসেছেন। তাঁদের ২১৪ জন নিহত হয়েছেন আর ২২৭ জন ইউক্রেন ছেড়ে গেছেন।