Image default
স্বাস্থ্য

স্বাস্থ্য ভালো রাখার কয়েকটি সহজ উপায়

স্বাস্থ্য সবচেয়ে মূল্যবান সম্পদ। ইংরেজিতে একটি কথা আছে , “Health is wealth”.

এর অর্থ হল স্বাস্থ্যই সম্পদ। আপাতদৃষ্টিতে টাকা, জমিজমা, সোনা দানা ও অন্যান্য সম্পদ মূল্যবান। বেশিরভাগ মানুষই এগুলোর প্রতি প্রাধান্য দিয়ে থাকেন। কিন্তু যখন তাদের শারীরিক অসুবিধায় পড়তে হয় তখন অনেক দেরি হয়ে যায়। তখন তারা উপলব্ধি করে স্বাস্থ্যই সম্পদ। তারা অন্য কিছু অর্জন করতে গিয়ে মূল্যবান সম্পদ হারিয়ে ফেলেছেন। বর্তমানে আপনি স্বাস্থ্যের বিষয়ে সচেতন না হলে ভবিষ্যতে আপনি এই মূল্যবান সম্পদ অনায়াসেই হারিয়ে ফেলবেন। তবে কিছু নিয়ম পালন করলে স্বাস্থ্য কে টিকিয়ে রাখা সম্ভব

স্বাস্থ্য সবচেয়ে মূল্যবান সম্পদ
ছবি: ইন্টারনেট

 

১. সারাদিনে অন্তত ৪ থেকে ৫ লিটার জল পান করুন। আপনার সকাল শুরু করুন এক গ্লাস জল পান করে।

২. হাঁটুন। প্রতিদিন কমপক্ষে তিন কিলো মিটার হাঁটুন। তবে অলস ব্যাক্তির মত নয়। জোরে জোরে হাঁটুন।

৩. খাবার খান পর্যাপ্ত পরিমাণে। যদি আপনার হজমে র সমস্যা থাকে তবে আপনি দু ঘন্টা পর পর খাবার খান।

৪. বর্তমানে বেশিরভাগ মানুষ সোশ্যাল মিডিয়ায় তাদের সময় নষ্ট করে। এগুলো থেকে বিরত থাকুন। সারাদিনে আপনি ৩০ থেকে ৪০ মিনিটের বেশি সময় সোশ্যাল মিডিয়ায় নষ্ট করবেন না। যদি সম্ভব হয় সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করাই বন্ধ করে দিন।

৫. মোটিভেশনাল ভিডিও দেখা বন্ধ করুন। আপনি যতক্ষন ভিডিওতে দেখানো বিষয়গুলি বাস্তবায়ন করতে না পারছেন ততক্ষণ এগুলি দেখা মানে সময় নষ্ট করা ছাড়া কিছুই নয়। আপনি হইতো ভাবছেন এই ভিডিওটি শেষ কিন্তু এর সাথে সাথে আপনি নিজের অজান্তেই আরো ১০ টি ভিডিও দেখে ফেলবেন। তাই ভিডিও দেখা বন্ধ করুন, কাজ শুরু করুন।

৬. সর্বপ্রথম রাতজাগা বন্ধ করুন।

৭. নিজের জন্য সময় বের করুন। দিনে দুই বার সূর্য প্রণাম ব্যায়ামটি সম্পূর্ণভাবে করুন।

৮. স্বাস্থ খারাপ পহওয়ার পিছনে আরও একটি কারণ হলো টেনশন। যা আপনার অজান্তেই চলে আসে। আপনি শত চেষ্টা করেও টেনশন কে দূরে সরাতে পারবেন না। তাই আমার মতে আপনি এমন কিছু করুন যা আপনার টেনশন দূর করতে পারে। যেমন গাছ লাগান, নতুন কিছু শিখুন অথবা গল্পের বই পড়ুন। এতে আপনার টেনশন ধীরে ধীরে দূর হয়ে যাবে।

৯. ধ্যান করুন। একটি আরামদায়ক আসনে বসে প্রায় 10 থেকে 15 মিনিট ধ্যান করুন। ধ্যান করার সময় শ্বাস-প্রশ্বাসের দিকে নজর রাখুন।

১০. মানুষের সঙ্গে কথা বলুন। কিছুটা সময় ইষ্ট দেবতা কে সমর্পন করুন।

১১. মনে রাখবেন স্বাস্থ্যই সম্পদ। কেউ খাওয়ার জন্য বাঁচে আবার কেউ বাঁচার জন্য খেয়ে থাকে। এখন আপনি ঠিক করুন স্বাস্থ্য আগে না অন্যান্য কিছু আগে। স্বাস্থ্য কি আগে সময় দিন

Related posts

হাড়ের ক্ষতির বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য, FDA কম্পন বেল্ট অনুমোদন করে যা মেনোপজ-পরবর্তী মহিলাদের সাহায্য করার জন্য দেখানো হয়

News Desk

বিশেষজ্ঞদের মতে আপনার গদি আপনার ঘুমকে ব্যাহত করতে পারে এমন 6টি লক্ষণ

News Desk

পেরুতে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব 200 হাজারে পৌঁছেছে, 200 জন মারা গেছে, এল নিনোর বৃষ্টিতে বেড়েছে

News Desk

Leave a Comment